Close

September 11, 2020

বাংলা সাহিত্যের আদি বা প্রাচীন যুগ থেকে গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্নোত্তর

Important-questions-from-the-ancient-times-of-Bengali-literature

পর্ব-১

১. বাংলা ভাষা ও সাহিত্যের প্রাচীনতম শাখা কোনটি?

উত্তরঃ কাব্য।

২. বাংলা ভাষা ও সাহিত্যের প্রাচীন নিদর্শন কোনটি?

উত্তরঃ চর্যাপদ।

৩. বাংলা ভাষার প্রথম কবিতা সংকলন কোনটি?

উত্তরঃ চর্যাপদ।

৪. বাংলা সাহিত্যের প্রাচীন যুগের নিদর্শন কোনটি?

উত্তরঃ দোহাকোষ।

৫. চর্যাপদ যে বাংলা ভাষায় রচিত এটি প্রথম কে প্রমাণ করেন?

উত্তরঃ সুনীতিকুমার চট্টোপাধ্যায়।

৬. চর্যাপদ কোন ছন্দে লেখা?

 উত্তরঃ মাত্রাবৃত্ত।

৭. ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহ সম্পাদিত ‘চর্যাপদ’ বিষয়ক গ্রন্থের নাম কী?

 উত্তরঃ Buddhist Mystic Songs

৮.  নিচের কোনটি সহোদর ভাষাগোষ্ঠী?

 উত্তরঃ বাংলা ও অসমিয়া।

৯. বাংলা সাহিত্যের আদিগ্রন্থ ‘চর্যাপদ’ এর রচনাকাল কত?

 উত্তরঃ সপ্তম থেকে দ্বাদশ শতক।

১০. বাংলা সাহিত্যের ইতিহাস ও ইংরেজী সাহিত্যের ইতিহাস  – এ দুটির মধ্যে কোনটি বেশি পুরাতন?

উত্তরঃ ইংরেজী সাহিত্যের ইতিহাস।

১১. ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহর মতে, চর্যাপদের ভাষা-

উত্তরঃ বঙ্গ-কামরুপী।

১২. কোন পণ্ডিত চর্যাপদের পদগুলোকে টীকার মাধ্যমে ব্যাখ্যা করেন?

 উত্তরঃ মুনিদত্ত।

১৩. চর্যাপদের আনুমানিক বয়স কত বছর?

উত্তরঃ ১০০০ বছর।

১৪. ‘The Origin and Development of the Bengali Language’গন্থটি কার রচনা?

উত্তরঃ ড. সুনীতিকুমার চট্টোপাধ্যায়।

১৫. সন্ধ্যাভাষা কোন সাহিত্যকর্মের সাথে যুক্ত?

 উত্তরঃ চর্যাপদ।

১৬.’চর্যাপদ’ রচনাটি বাংলা সাহিত্যের কোন যুগের কাব্য নিদর্শন?

 উত্তরঃ আদিযুগ।

১৭. চর্যাপদ হলো মূলত-

 উত্তরঃ গানের সংকলন।

১৮. চর্যাপদের সঙ্গে কোন ধর্মের নাম সংশ্লিষ্ট?

উত্তরঃ বৌদ্ধ ধর্ম।

১৯. ‘চর্যাচযবিনিশ্চয়’ এর অর্থ কী?

 উত্তরঃ কোনটি আচরণীয় আর কোনটি নয়।

২০. চর্যাপদ হলো-

 উত্তরঃ সাধন সংগীত।

২১. ‘চর্যাপদ’ কোন ধর্মাবলম্বীদের সাহিত্য?

 উত্তরঃ সহজিয়া বৌদ্ধ।

২২. বাংলা ভাষার আদি নিদর্শন চর্যাপদ আবিষ্কৃত হয় কত সালে?

 উত্তরঃ ১৯০৭

২৩. বাংলা ভাষার প্রথম কাব্য সংকলন চর্যাপদের আবিষ্কারক কে?

 উত্তরঃ ডক্টর হরপ্রসাদশাস্ত্রী।

২৪. ‘চর্যাপদ প্রথম কোথা থেকে প্রকাশিত হয়?

 উত্তরঃ বঙ্গীয় সাহিত্য পরিষদ।

২৫.  হরপ্রসাদশাস্ত্রী চর্যাপদ যে গ্রন্থে প্রকাশ করেছিলেন তার নাম হল-

 উত্তরঃ হাজার বছরের পুরাণ বাঙ্গালা ভাষায় বৌদ্ধগান ও দোহা।

২৬. বঙ্গীয় সাহিত্য পরিষদ কর্তৃক প্রকাশিত চর্যাপদ কে সম্পাদনা করেন?

উত্তরঃ শ্রী হরপ্রসাদ শাস্ত্রী।

২৭. হরপ্রসাদ শাস্ত্রী পুঁথি সাহিত্য সংগ্রহের জন্য গিয়েছিলেন-

 উত্তরঃ তিব্বত, নেপাল।

২৮. চর্যাপদ আবিষ্কৃত হয় কোথা থেকে?

 উত্তরঃ নেপালের রাজগ্রন্থশালা থেকে।

২৯. কোন রাজবংশের আমলে চর্যাপদ রচনা শুরু হয়?

উত্তরঃ পাল।

৩০. প্রাপ্ত চর্যাপদের পদকর্তা কত জন?

 উত্তরঃ ২৩ জন্

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

%d bloggers like this: